শনিবার, ১১ জুন, ২০১৬

খালেদার ইফতারে বিদিশা

রাজধানীর বসুন্ধরা কনভেনশন সেন্টারের ‘নবরাত্রি হলে’ রাজনীতিবিদদের সম্মানে তার দেওয়া ইফতার পার্টিতে ছিলেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদের সাবেক স্ত্রী বিদিশা সিদ্দিকও।ইফতারে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের বাইরে শুধু কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান তালুকদার ও সাংগঠনিক সম্পাদক শফিকুল ইসলাম দেলোয়ারসহ দলটির নেতারা অংশ নেন। আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা ও সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলামকে বিএনপি চেয়ারপারসন আমন্ত্রণ জানালেও তারা ইফতারে যোগ দেননি।

বিদিশা ২০ দলীয় জোটের অন্যতম শরিক জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) আহসান হাবিব লিংকন ও বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক শামা ওবায়েদের পাশে বসে ইফতার করেন। ইফতারের আগে খালেদা জিয়া আমন্ত্রিত অতিথিদের টেবিল ঘুরে ঘুরে তাদের সঙ্গে ‍কুশল বিনিময় করেন।

খালেদার ইফতারে বিদিশা

এলডিপির অলি আহমেদ, জামায়াতে ইসলামীর অধ্যাপক মজিবুর রহমান, ইসলামী ঐক্যজোটের এমএ রকিব, বিজেপির আন্দালিব রহমান পার্থসহ ২০ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতাদের নিয়ে মূল টেবিলে ইফতার করেন বিএনপি চেয়ারপারসন।

জোটের অন্য শীর্ষ নেতাদের মধ্যে কল্যাণ পার্টির সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম, এলডিপির রেদোয়ান আহমেদ, জামায়াতে ইসলামীর মসিউল আলম, সেলিম উদ্দিন, আবদুর রব, গোলাম মোস্তফা, আবদুল হালিম, শামীম সাঈদী, জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) টিআইএম ফজলে রাব্বী চৌধুরী, মোস্তফা জামাল হায়দার, এসএমএম আলম, আহসান হাবিব লিংকন, নোয়াব আলী আব্বাস খান, ইসলাম ঐক্যজোটের মাওলানা আবদুল করিম, খেলাফত মজলিশের মজিবুর রহমান পেশায়ারী, জাগপার শফিউল আলম প্রধান, এনডিপির ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, খন্দকার গোলাম মূর্তজা, মুসলিম লীগের এএইচএম কামরুজ্জামান খান, লেবার পার্টির মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, হামদুল্লাহ আল মেহেদি, পিপলস লীগের গরীবে নেওয়াজ, সৈয়দ মাহবুব হোসেন, ন্যাপ-ভাসানীর আজহারুল ইসলাম, বাংলাদেশ ন্যাপের জেবেল রহমান গানি, সাম্যবাদী দলের সাঈদ আহমেদ, জমিয়তে উলামায়ে ইসলামীর মুফতি মুহাম্মদ ওয়াক্কাস, মুফতি আবদুর রব ইউসুফী, ডিএল’র সাইফুদ্দিন মনি, ইসলামিক পার্টির আবু তাহের চৌধুরী ইফতারে অংশ নেন।

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মওদুদ আহমদ, মাহবুবুর রহমান, তরিকুল ইসলাম, আ স ম হান্নান শাহ, জমির উদ্দিন সরকার, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, নজরুল ইসলাম খান, চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, এম মোর্শেদ খান, আবদুল্লাহ আল নোমান, আলতাফ হোসেন চৌধুরী, সেলিমা রহমান, খন্দকার মাহবুব হোসেন, শাহজাহান ওমর, মীর নাসির, ইনাম আহমেদ চৌধুরী, আবদুল হালিম, সুজাউদ্দিন, জয়নুল আবেদীন, এ জেড এম জাহিদ হোসেন, রুহুল আলম চৌধুরী, হায়দার আলী, আহমেদ আজম খান, আবদুল কাউয়ুম, আমানউল্লাহ আমান, মজিবুর রহমান সারোয়ার, সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবীর খোকন, লুৎফর রহমান খান আজাদ, রুহুল কদ্দুস তালুকদার দুলু, শহীদউদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, অধ্যাপক আবদুল্লাহসহ কেন্দ্রীয় নেতা ও সাবেক সাংসদরা ছিলেন এই ইফতারে।

শেয়ার করুন

0 মন্তব্য(গুলি):